ঝিকরগাছা থেকে হারিয়ে গেছে অমৃতবাজার রেল স্টেশন

ঝিকরগাছা থেকে হারিয়ে গেছে অমৃতবাজার রেল স্টেশন

কলাম ও ফিচার
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
ঝিকরগাছা থেকে হারিয়ে গেছে অমৃতবাজার রেল স্টেশন
সাজেদ রহমান, সিনিয়র সাংবাদিক।।  ঝিকরগাছা থেকে হারিয়ে গেছে অমৃতবাজার রেল স্টেশন। মানুষের প্রয়োজনে অনেক সময় কোন স্থান জৌলুস পায়। আবার একদিন তা হারিয়ে যায়। এমনকি ইতিহাস থেকেও। যেমন যশোরের ঝিকরগাছা থেকে হারিয়ে গেছে অমৃতবাজার স্টেশন। এই রেল স্টেশনটির স্থায়ীত্ব ছিল মাত্র ৬ বছর। কিন্তু ইতিহাসে তা স্থান পেয়েছে।
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় যখন ব্রিটিশ সেনারা ঝিকরগাছায় ঘাঁটি গাড়েন-তখন সাধারণের জন্য জন্য ঝিকরগাছা রেল স্টেশন বন্ধ করে দেয়া হয়। ব্রিটিশ সেনা বাহিনী ৩৬ ঘন্টা সময় বেঁধে দিয়ে স্থানীয় মানুষকে ঝিকরগাছা ছাড়তে বাধ্য করেন। সেই সময় ঝিকরগাছার অনেক বাসিন্দা বাড়ি ছেড়ে চলে যান আশেপাশের গ্রামে। তখন সাধারণ মানুষের জন্য যশোর বেনাপোল সড়কের পাশে লাউজানীতে একটি রেল স্টেশন করা হয়। তার নাম দেয়া হয় ‘অমৃতবাজার রেল স্টেশন’।
সেটি চালু ছিল ১৯৪১ সাল থেকে ১৯৪৭ সালের জানুয়ারি/ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। কারণ ১৯৪৬ সালের শেষ দিকে বৃটিশ সৈন্যরা ঝিকরগাছা থেকে চলে যান। ইতিহাস গবেষক হোসেনউদ্দিন হোসেন জানান, কয়েক কিলোমিটার পর্যন্ত জনবসতি উঠিয়ে দিয়ে ব্রিটিশ আর্মি অতি গোপনীয়তায় সেনাদের আনা-নেওয়া এবং আজাদ হিন্দ ফৌজদের ‘চরম শাস্তি’ কার্যকর করতো। সেই শাস্তির গোপনীয়তার অংশ হিসেবে ঝিকরগাছা রেলওয়ে স্টেশনটি সাধারণের ব্যবহারের সুযোগ ছিল না। সাধারণের ব্যবহারের জন্য কয়েক কিলোমিটার দুরে লাউজানীর কাছে অমৃতবাজার নামে আরও একটি স্টেশন করে দেওয়া হয়।
হোসেনউদ্দিন হোসেন মনে করেন, ব্রিটিশ আর্মি ঝিকরগাছায় কৌশলগত কারণে সেনা ছাউনী স্থাপন করে। এর মাঝে মুখ্য কারণ হচ্ছে-স্থানটি ব্যারাকপুরের কাছে এবং রেল ও নৌপথে যাতায়াত সুবিধা ছিল। ভিজিট করুন

1 thought on “ঝিকরগাছা থেকে হারিয়ে গেছে অমৃতবাজার রেল স্টেশন

Comments are closed.