ট্রাক্টর নামক দানবের অত্যাচারে অতিষ্ট কলারোয়ার পথচারী

ট্রাক্টর নামক দানবের অত্যাচারে অতিষ্ট কলারোয়ার পথচারী

দেশের খবর স্বাস্থ্য
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ট্রাক্টর নামক দানবের অত্যাচারে অতিষ্ট কলারোয়ার পথচারী

কলারোয়া প্রতিনিধি।।  কলারোয়া উপজেলায় ট্রাক্টরের অত্যাচারে অতিষ্ট হয়ে উঠেছে পথচারীসহ সাধারণ মানুষ। উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় গড়ে ওঠা ইটভাটা কেন্দ্রিক রাস্তা গুলো চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

নষ্ট হচ্ছে পাকা রাস্তাগুলি সাথে সাথে ধুলাবালির উড়ার কারণে রাস্তায় সব সময় ধুষর দেখায় যার কারণে পথচারীরা চলাচল করতে পারে না। ফজরের আজানের সময় থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত অবিরাম ভাবে চলতে থাকে এই দানব গাড়ী। ট্রাক্টর নামক দানব গাড়ী এত দ্রুত গতিতে চলে যা যে কোন সময় ঘটতে পারে র্দূঘটনা।

কলারোয়া পৌর সদরের কলাগাছীর মোড় হতে বামন খালী পর্যন্ত রাস্তায় এত পরিমানে চলাচল করে যা রাস্তায় কোন ভাবে চলাচলা করা একেবারেই অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। এ বিষয়ে পথচারিদের কাছে জানতে চাইলে বলেন এ গাড়ী এত বেপরোয়া গতিতে চলে যে কোন সময় বড় ধরনের র্দূঘটনা ঘটতে পারে।

করোনায় যখন সারা বিশ্ব স্তবির হয়ে পড়েছে সরকার সব সময় পরিস্কার পরিচ্ছন্ন ভাবে থাকতে নিয়মিত বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় সতর্ক থাকতে বলছে এ সময় কলারোয়ায় বিভিন্ন ভাটা কেদ্রীক রাস্তা দিয়ে চলা করা একেবারেই অসম্ভাব হয়ে পড়েছে। বাড়ী থেকে পরিস্কার জামা কাপড় পড়ে রাস্তায় উঠলেই গন্তব্য স্থানে যেতে না যেতেই ধুলায় তা নষ্ঠ হয়ে যায়।

ধুলার কারণে বিভিন্ন শ্বাস কষ্ট জনিত রোগের প্রকোপ দেখা দিতে পারে। এ বিষয়ে রাস্তার পাশে অবস্থিত বাড়ীর মালিকরা বলেন এই গাড়ী চলার কারণে আমাদের বাড়ী বসবাস করা যাচ্ছে না কারণ যে পরিমান গতিতে চলে এবং ধুলা ওড়ে এতে করে বাড়ীঘরে থাকা অসম্ভাব হয়ে পড়েছে।

পথচারিরা আরো বলেন আমরা চেয়ারম্যান মেম্বারদের বলেছি বলার পরেও কোন কাজ হচ্ছে না। পথচারিদের দাবি এ দানব নামক গাড়ী চলাচল বন্ধ করে দিয়ে চলাচলে উপযোগী করে দিতে জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সুদৃষ্টি কামনা করেন।

এ বিষয় কলারোয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, ট্রাক্টর বন্ধ করা আমার কার্যবলীর মধ্যে আছে কিনা জানি না তবে আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ঘর নিয়ে ব্যস্ত আছি বিষয়টি পরে দেখবো। ভিজিট করুন

শাকিরার সকল গাওয়া গান কিনে নিয়েছে যুক্তরাজ্যের হিপনোসিস