ঠাকুরগাঁওয়ে তরুণীকে পালাক্রমে ধর্ষণ

ঠাকুরগাঁওয়ে তরুণীকে পালাক্রমে ধর্ষণ

জাতীয় খবর
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

প্রেমের ফাঁদে ফেলে ঠাকুরগাঁওয়ে এক তরুণীকে (১৭) পালাক্রমে ধর্ষণের করা হয়েছে। রবিবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় সদর উপজেলার ১০ নম্বর জামালপুর ইউনিয়নের ০৯ নম্বর ওয়ার্ডের ভগৎ গাজী মুরগির ফার্মের পাশে একটি আমবাগানে এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ওই তরুণীর মা বাদী হয়ে ঠাকুরগাঁও সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ সোমবার (০১ মার্চ) বিকেলে এ মামলায় চার জনকে গ্রেফতার করেছে । গ্রেফতাররা হলেন- জেলার রাণীশংকৈল উপজেলার উত্তর মহেশপুর গ্রামের আব্দুল জলিলের ছেলে বাবুল (১৯), একই এলাকার খলিলুর রহমানের ছেলে সোহেল রানা (২০), নুনতোর বাবুপাড়া গ্রামের শামসুদ্দীনের ছেলে রমজান আলী (১৯), ঝাড়বাড়ি মোহাম্মদপুর গ্রামের মোসলেম উদ্দীনের ছেলে পইদুল ইসলাম (২২)।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, এক মাস আগে ওই তরুণীর সঙ্গে বাবুলের মোবাইলের মাধ্যমে পরিচয় হয় এবং প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। গত শনিবার বিকেল ৩টার সময় খালার বাড়ি যাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে কাশিয়াডাঙ্গা ব্রিজে বাবুলের সঙ্গে দেখা করতে যায় ওই তরুণী। সেখানে বাবুল ও তার সহযোগী সোহেলসহ অপরিচিত চার/পাঁচ জন ওই তরুণী ও তার ভাতিজিকে তুলে নিয়ে যায়। পরে ভগৎ গাজী মুরগির ফার্মে ওই তরুণীর ভাতিজিকে আটকে করে রাখে এবং পাশের আমবাগানে বাবু ওরফে বাবুল ও তার সহযোগী সোহেলসহ অন্যান্যরা ওই তরুণীকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়।

ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তানভিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, তরুণীর মায়ের দায়ের করা মামলায় তাৎক্ষণিকভাবে অভিযান চালিয়ে অভিযুক্তদের মধ্যে চার জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তদন্ত চলছে। অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। সূত্র-বাংলা নিউজ।