প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন

কেশবপুর ধর্ষন মামলার আসামীদের হুমকিতে স্বাক্ষীর পরিবার নিরাপত্তাহীন

দেশের খবর
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন

কেশবপুরে আসামীদের জীবননাশের হুমকিতে ধর্ষন মামলার এক স্বাক্ষী তার পরিবার নিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। ওই মামলার স্বাক্ষী থেকে সরে না দাঁড়ালে তাকে একাধিক মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে হয়রানি করা হবে। বুধবার সকালে উপজেলার ধর্মপুর গ্রামের ইছাক আলী মোল্যার ছেলে আব্দুল হান্নান কেশবপুর প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব অভিযোগ করেন।

লিখিত বক্তব্য পাঠকালে তিনি বলেন, গত ১৫ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় ধর্মপুর গ্রামের প্রতিবন্ধী যুবতী গাছের তাল কুড়াতে গেলে তাকে ধর্ষন করে একই গ্রামের আরশাদ আলীর ছেলে মোমিন সরদার। ওই রাতেই রক্তাক্ত জখম অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে প্রতিবন্ধী যুবতীর অবস্থার অবনতি হলে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়।

এ ঘটনায় ১৬ সেপ্টেম্বর ধর্ষক মোমিন সরদারকে আসামী করে থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করা হয়। যার নং-৮। পুলিশ ধর্ষক মোমিন সরদারকে আটক করে আদালতে সোপর্দ করে। এখনও সে জেলহাজতে রয়েছে। এ মামলায় তাকে ২নং স্বাক্ষী করা হয়।

এরই জের ধরে গত ১ নভেম্বর বিকেলে ধর্ষকের ভাই মোসলেম সরদার, ইসলাম সরদার, ফারুকসহ ৪/৫ জন ব্যক্তি তার বাড়ির সামনে এসে অকথ্য ভাষায় গালমন্দসহ মামলার স্বাক্ষী থেকে সরে দাঁড়াতে হুমকি দেয়। সরে না দাঁড়ালে সেসহ তার পরিবারকে একাধিক মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে হয়রানিসহ জীবননাশের হুমকি দেয়া হয়। এ ঘটনায় তিনি জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে কেশবপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন। যার নং-৩৯। বর্তমান আসামীর ভাইয়েরা ধর্ষক মোমিন সরদারকে নির্দোষ প্রমান করতে বিভিন্ন মহলে দেনদরবার করছে।  ভিজিট করুন

কেশবপুর থানা পুলিশ ওয়ারেন্টভুক্ত ৯ আসামিকে গ্রেফতার করেছে