মণিরামপুরবাসী আমার শেঁকড়: লেখক ভট্টাচার্য্য

মণিরামপুরবাসী আমার শেঁকড়: লেখক ভট্টাচার্য্য

জাতীয় খবর
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
মণিরামপুরবাসী আমার শেঁকড়: লেখক ভট্টাচার্য্য

নিজ এলাকায় সংবর্ধিত হলেন যশোর জেলার মণিরামপুর উপজেলার ছেলে লেখক ভট্টাচার্য্য। যিনি কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক। সোমবার মণিরামপুরে শহীদ মশিয়ূর রহমান অডিটোরিয়ামে উপজেলা ছাত্রলীগের আয়োজনে তাকে এ সংর্বধনা দেওয়া হয়।

সংর্বধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শ আমাদের জাতি হিসেবে অগ্রসর হতে অনুপ্রেরণা জোগায়। জাতির পিতার আদর্শ আপনারা নষ্ট করবেন না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ট নেতৃত্বে দেশে ব্যাপক উন্নয়নমূলক কাজ হয়েছে। সারাদেশের মত মণিরামপুরেও ব্যাপক উন্নয়মূলক কাজ হয়েছে। এমন কোন এলাকা নেই যেখানে আওয়ামীলীগ সরকারের উন্নয়নের ছোঁয়া লাগেনি।
সংর্বধিত অতিথি লেখক ভট্টাচার্য্য বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে সরকার নিরলসভাবে কাজ করছে। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। এই অগ্রযাত্রাকে কেউ রুখতে পারবে না। মণিরামপুরবাসী আমার শেঁকড়। আমি মৃত্যুর আগ মুহূর্ত পর্যন্ত মণিরামপুর মানুষের কল্যাণে কাজ করে যেতে চাই। তিনি আরো বলেন, ছাত্রলীগ ইতিহাস, ঐতিহ্য রক্ষা করতে হবে। ছাত্রলীগের ভাবমূর্তি যাতে ক্ষুন্ন না হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে ছাত্রলীগকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে।
উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক মুরাদুজ্জামান মুরাদের সভাপতিত্বে ও যুগ্ম আহবায়ক ফজলুর রহমান এবং জামাল হোসেনের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র আলহাজ্ব অধ্যক্ষ কাজী মাহমুদুল হাসান, সাধারণ সম্পাদক প্রভাষক ফারুক হোসেন, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের উপ-বিষয়ক সম্পাদক সাধন বিশ্বাস, উপ-গ্রন্থ সম্পাদক তন্ময় দেবনাথ।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদের সদস্য গৌতম চক্রবর্তী, আওয়ামীলীগ নেতা এ্যাড. বশির আহম্মেদ খাঁন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কাজী জলি আক্তার, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক মনিরুজ্জামান মিলন্টন, উপজেলা ছাত্রলীগের সদস্য হাদিউজ্জামান ফয়সাল, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ, স্থানীয় ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।